1. [email protected] : Faisal Ahmed : Faisal Ahmed
  2. [email protected] : Developer :
  3. [email protected] : Sylhet Press : Sylhet Press
সমস্যা বাম পায়ে কাটলেন ডান পা, চিকিৎসককে জরিমানা
বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৭:০৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
৬৭% মৃত্যুর জন্য দায়ী অসংক্রামক রোগ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী ছাতক থানার এসআই হাবিবুর রহমান পিপিএম আবারো পুরস্কৃত ছাতক থানা পুলিশের শ্বাসরুদ্ধকর অভিযানে আন্ত:জেলা ডাকাত বাচ্চু গ্রেফতার শিক্ষার্থীদের সব দাবি বাস্তবায়ন করা হবে: শিক্ষামন্ত্রী বগুড়ায় বাস চাপায় অটোরিকশার ৫ যাত্রী নিহত ভিসি পদত্যাগ করলেই তো সমস্যার সমাধান হবে না : শিক্ষামন্ত্রী হবিগঞ্জে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর সিভিল সার্জন অফিসে সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ বানিয়াচং এর নবনির্বাচিত ইউপি চেয়ারম্যানদের শপথ গ্রহণ যে গ্রামের মানুষ ফ্রান্সের ভাষায় কথা বলে এড. শাহীনের যুক্তরাষ্ট্র গমন উপলক্ষে মুন্সিপাড়া এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে বিদায়ী সংবর্ধনা

  • আপডেটের সময় : ডিসেম্বর, ২, ২০২১, ১:১২ অপরাহ্ণ
সমস্যা বাম পায়ে কাটলেন ডান পা, চিকিৎসককে জরিমানা

সমস্যা বাম পায়ে কাটলেন ডান পা, চিকিৎসককে জরিমানা

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সিলেটপ্রেস ডেস্ক :: চলতি বছরের শুরুতে বাম পায়ের সমস্যা নিয়ে চিকিৎসকের দ্বারস্থ হয়েছিলেন এক ব্যক্তি। একপর্যায়ে একটি পা কেটে ফেলার সিদ্ধান্ত নেন ওই চিকিৎসক। তবে রোগীর যে পায়ে সমস্যা ছিল সেটি কাটার পরিবর্তে ভুল পা কেটে ফেলেন চিকিৎসক। পরে ঘটনাটি বুঝতে পেরে আদালতে মামলা করেন ভুক্তভোগী রোগী।

বৃহস্পতিবার সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে জানা গেছে, অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আদালত অভিযুক্ত চিকিৎসককে জরিমানা করেছেন। এই ঘটনাটি ঘটেছে অস্ট্রিয়ায়।

প্রতিবেদনের তথ্যানুযায়ী, চলতি বছরের মাঝামাঝিতে বাম পায়ের সমস্যা নিয়ে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হয়েছিলেন অস্ট্রিয়ার এক বয়স্ক নাগরিক। তবে অপারেশনের সময় ওই চিকিৎসক তার ডান পা শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলেন। চিকিৎসকের এই ভুল অপারেশনের দুই দিন পর বুঝতে পারেন ভুক্তভোগী রোগী। এরপরই আদালতের দ্বারস্থ হন তিনি।

বুধবার অস্ট্রিয়ার লিনজ শহরের একটি আদালত অভিযুক্ত ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রায় ঘোষণা করেন। দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগে ৪৩ বছর বয়সী নারী ওই চিকিৎসকে আদালত ২ হাজার ৭০০ ইউরো জরিমানা করেন। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ প্রায় ২ লাখ ৬২ হাজার টাকা।

ভুল চিকিৎসার শিকার সেই বয়স্ক রোগী আগেই অবশ্য মারা গেছেন। বুধবার তার বিধবা স্ত্রী আদালতে উপস্থিত ছিলেন এবং সেখানে তাকে ৫ হাজার ইউরো ক্ষতিপূরণও দেওয়া হয়। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ প্রায় ৫ লাখ টাকা।

জানা গেছে, পায়ের সমস্যা নিয়ে গত মে মাসে অস্ট্রিয়ার ফ্রেইটাড শহরের একটি ক্লিনিকে ভর্তি হয়েছিলেন ওই ব্যক্তি। চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী সমস্যা থাকা বাম পা শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করতেই তিনি সেখানে ভর্তি হয়েছিলেন। কিন্তু অপারেশনের সময় চিকিৎসক তার ডান পা কেটে ফেলেন।

অপারেশনের দু’দিন পর পায়ের ব্যান্ডেজ পরিবর্তনের সময় ভুলের বিষয়টি ধরা পড়ে। তখন ওই ক্লিনিকের দাবি ছিল, দুর্ভাগ্যজনক পরিস্থিতির ফল হিসেবে এই ঘটনা ঘটেছে। এমনকি সেখানকার পরিচালক সংবাদ সম্মেলন করে প্রকাশ্যে ক্ষমাও প্রার্থনা করেছিলেন।

তবে এরপরও ভুক্তভোগী ওই রোগী আদালতের দ্বারস্থ হন এবং ক্ষতিপূরণ দাবি করেন। যদিও আদালতের রায়ে ক্ষতিপূরণ পাওয়ার আগেই মারা যান তিনি।

 

সিলেটপ্রেসবিডিডটকম / ২ ডিসেম্বর ২০২১ / আল-আমিন


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এই বিভাগের আরও খবর


© All rights reserved © 2020 SylhetPress
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ