1. [email protected] : Faisal Ahmed : Faisal Ahmed
  2. [email protected] : Developer :
  3. [email protected] : Sylhet Press : Sylhet Press
সিলেট শামসুদ্দীন হাসপাতালে প্রণোদনা উৎসব : নানা প্রশ্ন
বুধবার, ০৪ অগাস্ট ২০২১, ০৬:২০ অপরাহ্ন

  • আপডেটের সময় : জুলাই, ১৩, ২০২১, ৩:৫৭ পূর্বাহ্ণ
সিলেট শামসুদ্দীন হাসপাতালে প্রণোদনা উৎসব : নানা প্রশ্ন
ছবি-সংগৃহীত

সিলেট শামসুদ্দীন হাসপাতালে প্রণোদনা উৎসব : নানা প্রশ্ন

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

স্টাফ রিপোর্টার :: প্রনোদনার টাকায় উৎসবে মেতে উঠল সিলেটের শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালের নার্সরা। জীবন যুদ্ধে করোনা মহামারীতে কেউ জীবিত আর কেউ পরকালে। তাদের কথা স্মরণ না করে এই মহা উৎসব পালন হয়েছে প্রশ্নবিদ্ধ। উৎসব পালন দৃষ্টে সচেতন মহল মনে করছেন টাকার কাছে নৈতিকতা বিসর্জন দিয়ে কলঙ্কিত অধ্যায়ের সূচনা করেছে হাসপাতালের নার্সদের নিহারি সিন্ডিকেট।

এদিকে করোনায় প্রনোদনার টাকা প্রাপ্তি নিয়েও রয়েছে নানা গুঞ্জন। টাকার পরিমান কারো বেশী কারো কম। আবার ভারপ্রাপ্ত উপসেবা তত্বাবধায়ক নিহারি দাশ জোর করে যাদেরক হোষ্টেলে থাকতে বাধ্য করেছিলেন তারা প্রনোদনার সিংহ ভাগ টাকা থেকে বঞ্চিত হল। ফলে উৎসব আনন্দ নয়, তাদের মধ্যে বিরাজ করছে চাপা উত্তেজনা। তবে নিহারি সিন্ডিকেটের ভয়ে মুখ খোলতে পারছেন না তাদের কেউ। অভিযোগ পাওয়া গেছে-প্রনোদনার টাকা থেকে ৬% কীর্তনের পাশাপাশি বাড়তি চাঁদাও আদায় করে নিয়েছে ওই হাসপাতালের নিহারি সিন্ডিকেট।

প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত প্রনোদনার টাকা দিয়ে বৃহস্পতিবার উৎসব পালন করল শামসুদ্দিন হাসপাতালের নিহারি সিন্ডিকেট। প্রনোদনার এই টাকা দিয়ে ক্রেষ্ট তৈরি করে নিজের ঢোল নিজেরাই পিঠালো তারা।

সিলেট সদর শহীদ শামসুদ্দীন আহমদ হাসপাতালের স্বঘোষিত বি.এন.এ সভাপতি মাসুদের কুটচালে নিহারি সিন্ডিকেট মুমুর্ষ কোভিড রোগীদের ফেলে রেখে পালন করলো এ উৎসব। তাদের এহেন উৎসব পালন নানা প্রশ্ন দেখা দিযেছে জনমনে। লুটপাটের “অমানবিক’ এই আনন্দোৎসবে ওসমানীর বি.এন.এ সাধারন সম্পাদক মানবদরদী ইসরাইল আলী সাদেকের উপস্তিতিও অনেকটা প্রশ্নবিদ্ধ। এ যেন কই মাছের তেল দিয়ে কই বাজার উৎসব। তাছাড়া শামসুদ্দিন হাসপাতালের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক নার্সরা প্রনোদনার টাকা না পাওযার অভিযোগ করেছেন।

জনগনের ট্যাক্স ও গরীবের ঘামের টাকায় প্রদেয় প্রণোদনা নিয় এরকম উৎসব পালন কথটা যৌক্তিক? এহেন উৎসব পালনের মধ্য দিয়ে নার্সদের নৈতিকমুল্যবোধ ও সেবাধর্মী পেশাককে কলঙ্কিত করা হয়েছে বলে অনেকে মন্তব্য করেছেন। এরকম নামিদামি সিলেটের একমাত্র কোভিড ডেডিকেটেড হাসপাতালে প্রনোদনার উৎসব পালন সচেতন মহলে জন্ম দিয়েছে নানা জল্পনা ও কল্পনার। যেখানে ঝুকিতে থাকা নার্সদের মানবিক মুল্যবোধ বিবেচনায় প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত শতভাগ এই প্রণোদনা। প্রনোদনা পেয়ে নার্সরা উৎসব পালনের কি কোন দরকার ছিল? বিকল্প ব্যবস্হা নিতে পারতো তারা। প্রত্যেক নার্স ওই হাসপাতালে অবস্হানরত কোভিড রোগী ও তাদের এটেনডেন্টদের মধ্য একবেলা উন্নত খাবার বিতরন করে দোয়া ও আশীর্বাদ নিতে পারত??? এর বদলে সেখানে উৎসব পালন করে সম্মান জনক ২য় শ্রেনীর পেশাককে কলঙ্কিত করা হল বলে মম্তব্য সিলেটের সচেতন নাগরিকদের।

আরও পড়ুন নেহারি দাসের অনিয়ম রাজ্য শামসুদ্দিন হাসপাতাল

সিলেটপ্রেসবিডিডটকম /১৩ জুলাই ২০২১/ এফ কে


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এই বিভাগের আরও খবর


© All rights reserved © 2020 SylhetPress
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ